Header Ads

Header ADS

ইসলামি সংগীত বা গজল এর উৎপওি ও ইতিহাস

                                      যাদের কারণে আজ আমরা গজল     বা ইসলামি সংগীত শুনি

আসলে একেবারে গজলের উৎপওি ঠিকঠাক বলা মুসকিল,তবে অনেক গুনীজন বলে গিয়েছেন যে গজল এর উৎপওি আরব দেশ থেকেই।প্রথম যদিও আরবি গজল দিয়ে যুগেরর সূচনা, তবে সময়ের সাথে সাথে বাংলা,হিন্দি, ইংরেজি, উদু,ভিবিন্ন ভাবে গজল বা ইসলামি সংগীত গেয়ে আসছে অনেক ইসলামিক শিল্পী। এবং সময়ের সাথে সাথে গজল শুনা অনেক বেড়ে যায়।

মাওলানা জালাল উদ্দিন রুমি( রা) এর অনেক গজল আছে। বলা যায় ওনি ই শুরু করেছিলেন গজল বা ইসলামি সংগীত। তারপর অনেক গুনীজন গজল লিখেছেন বা গেয়েছেন।তাদের সুরে ও কথায় অনেক মানুষ তখন পাগলপারা। তাদের মুখে গজল শোনার জন্য অনেক ভক্তরা তাদেরকে বায়না দরতেন গজল শুনার জন্যে আর ওনারাও সুরে সুরে গজল বলতেন।তাদের গজলে শোবা পেত আল্লাহ তায়ালার গুনগান।ওনারা মনে প্রশান্তি পেতেল ইসলামি সংগীত বা গজল বলে। এ জন্যে ই মানুষ আজ ঈ তাদেরজে ভুলেন নাই।ভুলেন তাদের লিখা গজল বা ইসলামি সংগীত কে। যোগে যোগে ওনারা বেচে থাকবেন মানুষের মাঝে। তাদের ভাল কজের জন্যে

মাওলানা জালাল উদ্দিন রুমি রা ছাড়াও আর অনেক গুনীজনরা গজল বা ইসলামি সংগীত লিখেছেন।যেমন হাফেজ সিরাজি,আমির খসরু শহ অনেকেই। আমির খশরু ওনাকেই বলা যায় বাংলাদেশে গজল এর ওস্তাদ। ওনার হাত দরেই আমরা আজ গজল শুনি। ওনি না গাইলে আজ আমরাও হয়ত গজল শুনা বা গাওয়া হত না।এই গুনী মানুষ টি অনেক গজল গেয়েছেন। ওনাই অনেক গজল লিখেছেন ও। এবং তিনি ই প্রথম অনান্য ভাষা থেকে গজল অনুবাদ করা আরম্ভ করা শুরু করেন

এভাবেই অনেক অনেক গুনীজনের হাত দরেই গজল এসেছে আমাদের কাছে।তাদের কারণেই আমরা সুরে সুরে আল্লাহ তায়ালার গুনগান শুনতে পাই।আল্লাহ তায়ালা ওনাদেরকে বেহেস্ত ধান করুন

কোন মন্তব্য নেই

Blogger দ্বারা পরিচালিত.